ঢাকা   ২৭শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ । ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ । রবিবার । বিকাল ৩:৪৩

বরিশালে মিলাদের মঞ্চ থেকে নেত্রীকে নামতে বলা নিয়ে বিএনপির সংঘর্ষ

অনলাইন ডেস্কঃ বরিশাল মহানগর বিএনপি নেত্রী আফরোজা খানম নাসরিনকে মিলাদ মাহফিলের মঞ্চ থেকে নেমে যেতে বলায় দুই গ্রুপে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের ১০ জন আহত হয়েছেন। গুরুতর অবস্থায় দুই জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রোববার বিকালে বরিশাল জেলা ও মহানগর বিএনপি কার্যালয়ের সামনে এই ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের জন্মদিন উপলক্ষে দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করে মহানগর বিএনপি।

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপির মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপন। মাহফিলের মঞ্চে বসা ছিলেন মহানগর বিএনপির সদস্য আফরোজা খানম নাসরিন। দলীয় নেতাকর্মীরা জানান, মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব মীর জাহিদুল কবির এক পর্যায়ে আফরোজাকে মঞ্চ থেকে নামতে বলেন।

এ নিয়ে কথাকাটাকাটির মধ্যে দুই জনের সমর্থকদের সংঘর্ষ বাধে যায়। এতে ১০ নেতাকর্মী আহত হন। পরে দলের জ্যেষ্ঠ নেতারা গিয়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করেন।

আফরোজা বলেন, ‘মঞ্চে আমি বসা অবস্থায় মীর জাহিদ আমাকে নেমে যেতে বলেন। এরপর জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম তসলিম আমাকে গালাগাল করেন। একপর্যায়ে আমার ওপর হামলা করেন মীর জাহিদ।

এ নিয়ে আমার অনুসারীরা ক্ষিপ্ত হলে তাদের ওপরও হামলা করা হয়। ‘হামলায় আমার অনুসারী মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সহসাংগঠনিক সম্পাদক লিটন সিকদার ও ২২ নম্বর ওয়ার্ড যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক ইলিয়াস ও আমি গুরুতর আহত হই। আমি প্রাথমিক চিকিৎসা নিলেও বাকি দুজনকে শের ই বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকি আহতরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।’

বরিশাল মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব মীর জাহিদুল কবির জাহিদ বলেন, ‘নাসরিনকে মঞ্চ থেকে নেমে যেতে বলায় তার অনুসারীরা ঝামেলা করেছিল। এছাড়া তেমন কিছু হয়নি।’

বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি আজিমুল করিম বলেন, বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে কোনো সংঘর্ষের খবর পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

%d bloggers like this: